সংসদে রুমিন-আইনমন্ত্রী মুখোমুখি

নিজস্ব প্রতিবেদক

আজ সংসদে বাজেট পাসের সময় মন্ত্রণালয় ও বিভাগ–সম্পর্কিত ৫৯টি ছাঁটাই প্রস্তাবের মধ্যে একটি মন্ত্রণালয় ও দুটি বিভাগ নিয়ে আলোচনা হয়। এগুলো হলো আইন মন্ত্রণালয়, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগ এবং স্বাস্থ্যসেবা বিভাগ। জাতীয় পার্টি, বিএনপি ও গণফোরামের সদস্যরা ছাঁটাই প্রস্তাবের ওপর তাঁদের বক্তব্য দেন।

বিএনপির রুমিন ফারহানা নারায়ণগঞ্জে তিনজন গুম হওয়ার প্রসঙ্গটি টেনে আলোচনার সূত্রপাত ঘটান। এ সময় তিনি গুম হলে থানায় অভিযোগ না নেওয়া, বিচারবহির্ভূত হত্যা, জোরপূর্বক স্বীকারোক্তি আদায়, পুলিশি হেফাজতে হত্যা, গুম-খুন ও বিচারবহির্ভূত হত্যা নিয়ে আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রতিবেদনসহ বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলেন। তিনি বলেন, দেশে আইনের শাসন ও সুশাসন না থাকার কারণেই এসব ঘটনা ঘটছে।

পরে রুমিন ফারহানার এ বক্তব্যের জবাব দিতে গিয়ে আইনমন্ত্রী বলেন, ‘রুমিন ফারহানা মনে হয় ভুলে গেছেন যে আমি আইনমন্ত্রী। এখানে আইন মন্ত্রণালয়ের ব্যাপারে আলাপ হচ্ছে। উনি যা যা বলেছেন, সবকিছু কিন্তু স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিষয়। উনি আমার ওপরর চাপিয়ে দিয়েছেন। মানে হচ্ছে বক্তৃতা দেওয়ার একটা সুযোগ পেয়েছেন। ওই কথাগুলো বলেছেন। কথা হচ্ছে, ওটা আইনমন্ত্রীর কাজ নয়। এটা নিয়ে কথা বলতে হলে আরও ব্যাখ্যা করতে হবে। গুরুত্বপূর্ণ কাজ চলছে, কাজেই বিস্তারিত বলতে চাই না। তবে ওনাকে বলব স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ব্যাপারে এসব বিষয় নিয়ে আলোচনা করবেন—এখানে এখন বলবেন না। ধান ভানতে শিবের গীত গাইবেন না।’

পরে রুমিন ফারহানা শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের ছাঁটাই প্রস্তাবের ওপর আলোচনা করতে গিয়ে বলেন, বিষয়গুলো স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের হলেও এ বিষয়ে জাতিসংঘে হাজির হয়ে জবাব দিয়েছিলেন আইনমন্ত্রী। তিনি ওই দলের নেতা ছিলেন।

Loading...