Ultimate magazine theme for WordPress.

আরও ২ ওয়ার্ডে ফলাফল পাল্টানোর অভিযোগ

সিটি নির্বাচনে আবারও সাধারণ ওয়ার্ড কাউন্সিলারদের ফলাফল পাল্টে দেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। নতুন ওয়ার্ড হলো উত্তরের ৬ নং ও দক্ষিণের ৩২ নং সাধারণ ওয়ার্ড কাউন্সিলর। এর আগে একই অভিযোগে ঢাকা দক্ষিণের ৩১ নং ওয়ার্ডের ফলাফল স্থগিত করা হয়।

ঢাকা দক্ষিণের ৩২নং ওয়ার্ডের সঠিক ফল ঘোষণা এবং ভোট পুনঃগণনার জন্য রিটার্নিং অফিসারের কাছে আবেদন করেছেন ঠেলাগাড়ী প্রতীকের সাধারণ কাউন্সিলর প্রার্থী মো. বিল্লাল শাহ। তিনি অভিযোগ করে বলেন, সুষ্ঠুভাবে ভোট গণনা না করে মৌখিকভাবে ফল ঘোষণা করা হয়। এই ফল জালিয়াতি আর গরমিল হয়েছে।

এদিকে অর্থের বিনিময়ে ফলাফল পাল্টানোর অভিযোগ করেছেন ঢাকা উত্তর সিটির ৬নং সাধারণ ওয়ার্ডের আওয়ামী লীগ সমর্থিত মো. সালাউদ্দিন রবিন। প্রধান নির্বাচন কমিশনার বরাবর লিখিত অভিযোগে রবিন (টিফিন ক্যারিয়ার মার্কা) উল্লেখ করেন, ভোটগ্রহণ শেষ হওয়ার পর গণনার সময় তার এজেন্টদের  মৌখিকভাবে বিজয়ী বলে কেন্দ্র থেকে জোরপূর্বক বের করে দেয়া হয়। রিটার্নিং অফিসের বরাতে বিভিন্ন টেলিভিশন এবং অনলাইনে সালাউদ্দিন রবিনকে বিজয়ী করে সংবাদ পরিবেশন হয়।

কিন্তু রাত ১২টা থেকে ১টার মধ্যে নাম পরিবর্তন করে বিদ্রোহী প্রার্থী তাজুল ইসলাম চৌধুরী বাপ্পিকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়, যা সম্পূর্ণ মিথ্যা এবং জালিয়াতি।

সালাউদ্দিন রবিন বলেন, দ্বিগুণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, আলুদ্বী পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজ এবং পল্লবী মাজেদুল ইসলাম মডেল হাইস্কুল কেন্দ্রে তার এজেন্টের কাছে ফল ঘোষণার লিখিত কপি সরবরাহ করা হয়নি। এই তিন  কেন্দ্রের ফল পরিবর্তন করে তাকে হারানো হয়েছে। ইসির সংশ্নিষ্ট নির্বাচন কর্মকর্তারা মোটা অঙ্কের টাকার বিনিময়ে এ কাজ করেছেন বলে অভিযোগ  প্রার্থীর।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে উত্তরের রিটার্নিং অফিসার মো. আবুল কাশেম বলেন, মৌখিক ফলকে চূড়ান্ত বলে গণ্য করার সুযোগ নেই। কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রিসাইডিং অফিসার যে ফল পাঠিয়েছেন তার ভিত্তিতেই ঘোষণা করা হয়েছে। ফলে কোনো ত্রুটি থাকলে সংক্ষুব্ধ ব্যক্তি কমিশন অথবা ট্রাইব্যুনালে যেতে পারেন। তবে ঘোষণার পর ইভিএম লক করা হয়েছে। এটি একমাত্র ট্রাইব্যুনালের মাধ্যমে পুনঃগণনা সম্ভব বলে মত দেন তিনি।

Leave A Reply

Your email address will not be published.