মুঠোফোনে প্রেম, পরে ধর্ষণ করে ছড়িয়ে দিলেন ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদক

রাজশাহীর বাগমারায় প্রেমের সম্পর্ক গড়ে কিশোরীকে ধর্ষণের ভিডিও ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে করা মামলায় একজন গ্রেপ্তার হয়েছেন। তাঁর নাম সোহেল রানা (২৮) ওরফে ফেসবুক লিটন। আজ সোমবার দুপুরে তাঁকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

মামলার এজাহার, পুলিশ ও ভুক্তভোগী কিশোরীর পরিবার সূত্রে জানা যায়, কিশোরীর সঙ্গে সোহেল মুঠোফোনে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলেন। একপর্যায়ে মেয়েটিকে ধর্ষণ করেন তিনি। ধর্ষণের ঘটনার ভিডিও ধারণ করে তা ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দেন তিনি। কিশোরী এই ঘটনার পর সোহেলকে এড়িয়ে চলতে শুরু করে এবং ঘটনাটি তার পরিবারের সদস্যদের জানায়। সোহেল ধর্ষণের ভিডিও ও মেয়েটির আপত্তিকর ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেন। গতকাল রোববার মেয়েটির পরিবার বিষয়টি থানাকে জানায়। কিশোরীর বাবা বাদী হয়ে ধর্ষণ ও পর্নোগ্রাফি আইনে থানায় মামলা করেন। ওই মামলায় পুলিশ বখাটে সোহেলকে গ্রেপ্তার করে। আজ তাঁকে কারাগারে পাঠানো হয়।

Loading...