ব্রিটেনের পর এবার ফ্রান্সে একদিনে লক্ষাধিক সংক্রমণ

শীত বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে হঠাৎ করেই ইউরোপে বাড়ছে করোনার সংক্রমণ।

কয়েক দিন আগে ব্রিটেনে দৈনিক সংক্রমণ এক লাখ ছাড়ানোর পর রোববার প্রথমবারের মতো ২৪ ঘণ্টায় করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন লক্ষাধিক মানুষ। খবর ডয়েচে ভেলের।

ফ্রান্সে ২৩ ডিসেম্বর দৈনিক সংক্রমণ ছিল ৯১ হাজার ৬০৮। ২৬ ডিসেম্বর সেই সংখ্যা এক লাখ ছাড়ানোয় দৈনিক সংক্রমণে রেকর্ড গড়ল ফ্রান্স, যা গত দুই বছরে সর্বোচ্চ।

 

ইউরোপে করোনায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত ব্রিটেন, তার পরই ফ্রান্স। সংক্রমণের গতি দেখে কয়েক দিন আগেই সরকার ঘোষণা করেছিল খুব দ্রুত এক লাখ ছাড়াবে দৈনিক সংক্রমণ।

 

সেই আশঙ্কাকে সত্যি করেই মাত্র দুদিনের ব্যবধানেই দৈনিক সংক্রমণে রেকর্ড গড়ল ফ্রান্স।

 

ফ্রান্সের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় এক লাখ চার হাজার ৬১১ জন কোভিডে আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে টানা তিন দিন দৈনিক সংক্রমণে রেকর্ড করল ফ্রান্স।

 

ওমিক্রনের প্রভাবে সংক্রমণের মাত্রা ক্রমেই বাড়তে শুরু করেছে ফ্রান্স, ব্রিটেনসহ ইউরোপের দেশগুলোতে। কোভিডের এই নতুন রূপের প্রভাবে পরিস্থিতি কোথায় গিয়ে দাঁড়াবে তা নিয়ে চিন্তায় ফরাসি প্রশাসন।

 

ইতোমধ্যে সেখানে পূর্ণবয়স্কদের বুস্টার টিকার ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। সরকার থেকে ভ্যাকসিন পাস- এর ব্যবস্থা করা হয়েছে। এই পাস তাদেরই দেওয়া হচ্ছে যাদের দুটি টিকাই নেওয়া হয়ে গেছে।

 

রেস্তোরাঁ, ক্যাফে বা বিদেশ ভ্রমণের জন্য এই পাস থাকা বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। দুটি টিকা নেওয়া না থাকলে বহু জায়গাতেই প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।

 

সংক্রমণ ঠেকাতে ফ্রান্সের বিভিন্ন শহর আলাদা আলাদভাবে বিভিন্ন ক্ষেত্রে নিজেদের মতো নিরাপত্তামূলক পদক্ষেপ শুরু করেছে।

 

যেমন স্যাভয়েতে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। অন্যান্য শহরও নিজেদের মতো করে নানা পদক্ষেপ করছে।

 

ডিসেম্বরের শুরু থেকেই ফ্রান্সে করোনা সংক্রমণের ছবিটা আমূল বদলে যায়। গত ৪ ডিসেম্বর এক লাফে দৈনিক সংক্রমণ ৫০ হাজার ছাড়িয়ে যায়।

 

করোনা সংক্রমণের শুরু থেকে এখনও পর্যন্ত এ দেশে মৃত্যু হয়েছে এক লাখ ২৩ হাজার মানুষের।

 

ব্রিটেনে সংক্রমণের ছবিটাও প্রায় একই রকম। সে দেশে একদিনে করোনা-আক্রান্ত এক লাখ ১৯ হাজার বাসিন্দা।

 

 

 

গ্রিসের সাবেক প্রেসিডেন্ট কারোলোস পাপুলিয়াসের মৃত্যু

সরানো হলো পিলার অব শেম ভাস্কর্য

Leave A Reply

Your email address will not be published.