ফসল ডুবে বারবার পুড়ছে কৃষকের কপাল, মিলছে না টেকসই বাঁধ

উজানের পানির তোড়ে ভেঙে যাচ্ছে সুনামগঞ্জের হাওরের ফসলরক্ষা বাঁধ। বছরের একমাত্র ফসল পানিতে তলিয়ে পুড়ছে কৃষকের কপাল। বছরের পর বছর বর্ষা এলেই শ্বাসরুদ্ধকর পরিস্থিতির সময় পার করেন হাওরপারের কৃষকরা। আতঙ্ক আর উৎকণ্ঠা থেকে মুক্তি পাচ্ছেন না তারা।

 

 

প্রতি বছর বাঁধ সংস্কার হয় সরকারি টাকায়। কিন্তু বর্ষায় একের পর এক ভাঙতে থাকে বাঁধ। সেই বাঁধরক্ষায় যুগ যুগ ধরে পাহারা দিচ্ছেন কৃষক।

 

 

জানা যায়, বছরের পর বছর সুনামগঞ্জের হাওরের একমাত্র ফসল বোরো ধানরক্ষায় বাঁধের জন্য কোটি কোটি টাকা ব্যয় করছে সরকার। কিন্তু তার কোনো সুফল পাচ্ছেন না কৃষক। তারা চান টেকসই স্থায়ী বাঁধ।

 

 

কৃষকরা জানান, হঠাৎ করে পানিবৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে বাঁধে ধস নামে। এতে আতঙ্ক দেখা দেয়। এ ছাড়া বাঁধ নির্মাণেও ত্রুটি রয়েছে।

 

 

 

 

সুনামগঞ্জের শান্তিগঞ্জ পাউবির উপসহকারী প্রকৌশলী মো. মাহবুবুল আলম বলেন, এ অবস্থা থেকে উত্তরণে পানি উন্নয়ন বোর্ড বাঁধ সংস্কারের চেয়ে নদী খননকে গুরুত্ব দিচ্ছে।

 

নদী খননে নাব্য বাড়বে। এ ছাড়া বাঁধ সংস্কার হলে ঝুঁকিটা কমে যাবে।

 

চলতি মৌসুমে সরকার সুনামগঞ্জে ১২০ কোটি টাকা ব্যয়ে ৫৩০ কিলোমিটার ফসলরক্ষা বাঁধ সংস্কার করে।

 

 

দৌলতদিয়া-পাটুরিয়ায় ঝড়ের কবলে ৫ ফেরি, দুর্ভোগে হাজারো যাত্রী

 

পরীমনির মামলা: নাসিরদের ভাগ্য নির্ধারণ ১৮ মে

 

 

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.