পায়ুপথে লুকিয়ে স্বর্ণপাচারকালে গ্রেফতার এক পাচারকারী

পায়ুপথে লুকিয়ে স্বর্ণপাচারকালে গ্রেফতার এক পাচারকারী

পায়ুপথে লুকিয়ে স্বর্ণ চোরাচালানের অভিযোগে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের নিউ জলপাইগুড়ি স্টেশন থেকে খুনদংবান রণবীর মেইটেই নামে একজনকে গ্রেফতার করেছে রাজস্ব গোয়েন্দা দপ্তর। এসময় তার কাছ থেকে ৮৭১ গ্রাম স্বর্ণ উদ্ধার করা হয়, যার মূল্য প্রায় ৪৩ লাখ রুপি।

 

গ্রেফতার খুনদংবান রণবীর মনিপুরের বাসিন্দা। গেল বুধবার  তাকে শিলিগুড়ি আদালতে হাজির করা হয়। তবে আদালত তাকে বিশেষ শর্তে জামিন মঞ্জুর করেছে।

 

রাজস্ব দপ্তরের কর্মকর্তারা জানান, খুনদংবান রণবীর নিজের পায়ুপথে স্বর্ণের বারগুলো লুকিয়ে পাচারের চেষ্টা করছিলেন। তিনি শিলিগুড়ি করিডোর ব্যবহার করে এক রাজ্য থেকে অন্য রাজ্যে, এমনকি বিদেশেও স্বর্ণ চোরাচালানে জড়িত। তার সঙ্গে এই চক্রে জড়িত অন্যদেরও চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে।

 

রাজস্ব গোয়েন্দা দপ্তর সূত্র জানিয়েছে, মঙ্গলবার   ভারত-মিয়ানমার সীমান্ত থেকে পায়ুপথে লুকিয়ে স্বর্ণবার নিয়ে শিলিগুড়ি হয়ে দিল্লিতে পাচারের উদ্দেশ্যে রওয়ানা করেন খুনদংবান রণবীর। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রাজস্ব গোয়েন্দা দপ্তরের কর্মকর্তারা নিউ জলপাইগুড়ি স্টেশনে অভিযান চালান।

 

এসময় ‘রাজধানী এক্সপ্রেস’ নামে একটি বাসে তল্লাশি চালিয়ে খুনদংবান রণবীরকে আটক করা হয়। পরে তার দেহ তল্লাশি করে স্বর্ণ উদ্ধার করা হয়। তিনি বিশেষ কায়দায় স্বর্ণের বারগুলো পায়ুপথে লুকিয়ে পাচারের চেষ্টা করছিলেন।

 

শিলিগুড়ি আদালতের সরকারি আইনজীবী রতন বণিক বলেন, ‘জব্দকৃত স্বর্ণের মূল্য কোটি টাকার কম হওয়ায় অভিযুক্তকে শর্তসাপেক্ষে জামিন দেওয়া হয়েছে। তবে তদন্তের প্রয়োজনে যে কোনো সময় তাকে ডাকলে, তিনি আসতে বাধ্য থাকবেন।’

 

আসামিপক্ষের আইনজীবী আকাশদীপ শীল বলেন, ‘আমার মক্কেলকে ফাঁসানো হয়েছে। কোনোভাবেই আমার মক্কেল স্বর্ণ পাচারের সঙ্গে জড়িত নয়।’

 

 

 

 

দুবাইয়ের সবচেয়ে ব্যয়বহুল বিবাহ বিচ্ছেদ

ঘুড়ির সঙ্গে উড়ে গেলেন এক ব্যক্তি

Leave A Reply

Your email address will not be published.