পাত্র খুঁজছেন শ্রীলেখা!

মঙ্গলবার (২৩ নভেম্বর) শ্রীলেখা তার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে একটি ছবি শেয়ার করেন। খোলা চুল, গলায় পান্না হিরে গাঁথা মালা। কানে একই রকমের দুল। সঙ্গে মানানসই সাজ। সেজে পটের বিবি শ্রীলেখা।

এখানেই শেষ নয়। ছবি শেয়ার করে নিচে লিখেন, মেয়ে পছন্দ? অনেকে কমেন্ট বক্সে লিখেছেন লক্ষী মেয়ে, আবার কেউ লিকেছেন হ্যাঁ, খুব পছন্দ আবার কেউ বলেছে আমাদের স্বর্গের অপ্সরা।

ঠিকভাবে সাজলে এখনও বহু সুন্দরীকে টেক্কা দিতে পারেন অভিনেত্রী। কাকে প্রশ্ন করলেন শ্রীলেখা? দ্বিতীয় বার বিয়ের ইচ্ছে অভিনেত্রীর? এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি মজার সুরে বলেন, জানেনই তো, নিজেকে নিয়ে মজা করতে ভালোবাসি। সেজেগুজে ছবি তুলেছি। মনে হলো সবাইকে দেখাই। তার পরই মনে হলো, নিজেকে পরখ করে দেখতে দোষ কী? খবর আনন্দবাজার।

শ্রীলেখার দৃষ্টিভঙ্গি অন্যদের থেকে কিছুটা আলাদা। তিনি যুক্তি দেখিয়েছেন, সব সময় বিয়ে করতে হবে এমন কোনো মানে নেই। পাত্রী হিসেবে নয়, তাকে তো কেউ নিজের মেয়েও ভাবতে পারেন। মাথার উপর থেকে মা-বাবার ছায়া সরে গেছে। আক্ষরিক অর্থেই যেন নিজেকে অনাথ বলে মনে করছেন তিনি। সেই জায়গা থেকেই বোধহয় তার আবদার, কেউ আমায় দত্তকও নিতে পারেন! সেই ভাবনা থেকেই লিখেছি, মেয়ে পছন্দ?

 

কিছুদিন আগেই বাবা সন্তোষ মিত্রকে হারিয়েছেন অভিনেত্রী। এরপরই যেন আরও অসহায় হয়ে পড়েন তিনি। সম্প্রতি ফেসবুকে শ্রীলেখা লিখেছিলেন, এখনও ভয়েজ রেকর্ড করে পাঠাচ্ছি বাবার ফোনে।  হ্যাঁ, বাবা শুটিংয়ে পৌঁছে গেছি। শরীর ঠিক আছে। খুব ভালো হচ্ছে শুটিং, ইত্যাদি ইত্যাদি।

বাবা হিসেবে দেখতে চাইতো মেয়ের ভালো কাজ, মেয়ের প্রশংসা চারদিকে। বলেছিলাম একটু ওয়েট করো বাবা। ‘ওয়ান্স আপন আ টাইম ইন কলকাতা’ রিলিজ করতে দাও।’ বাবা বলেছিল, তোর এ সিনেমাটা দেখার জন্য বোধহয় এখনও বেঁচে আছি। একরাশ আফসোস আর আক্ষেপ নিয়ে আমার বেঁচে থাকার পালা যতদিন না…।

Leave A Reply

Your email address will not be published.