পাকিস্তান সফর নিয়ে আগ্রহী নয় ক্রিকেটাররা

বাংলাদেশের পাকিস্তান সফরের অনিশ্চয়তা আরও বেড়ে গেল। অধিকাংশ ক্রিকেটাররা পাকিস্তানে যেতে আগ্রহী নন। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) এক উর্ধ্বতন কর্মকর্তা বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন। 

পাকিস্তানে চলতি মাসেই বাংলাদেশের সফর করার কথা ছিল। সেখানে তিনটি টি-টোয়েন্টি এবং দুটি টেস্ট ম্যাচ হওয়ার কথা রয়েছে। কিন্তু বিসিবি নিরাপত্তাজনিত কারণে দীর্ঘ সময় পাকিস্তানে থাকতে নারাজ। তাই তারা পাকিস্তানে তিন ম্যাচের একটি টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলার প্রস্তাব দিয়েছে পিসিবিকে। এছাড়া কোন নিরপেক্ষ ভেন্যুতে টেস্ট সিরিজ আয়োজন করতে পিসিবিকে প্রস্তাব দিয়েছে বিসিবি। 

তবে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) এ প্রস্তাবে রাজি হয়নি। পিসিবি চেয়ারম্যান এহসান মানি ঘোষণা দিয়েছেন যে এখন থেকে পাকিস্তান তাদের সবগুলো হোম সিরিজ দেশের মাটিতে খেলবে। দুই বোর্ডের এমন পরস্পরবিরোধী অবস্থানে সিরিজ আয়োজনে তৈরি হয়েছে অনিশ্চয়তা।

ক্রিকেটারদের পাকিস্তান সফরের বিষয়ে বিসিবি কর্মকর্তা বলেন, এ বিষয়ে ক্রিকেটারদের মতামত জানতে চাওয়া হয়েছিল।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘বোর্ড এই সিরিজ নিয়ে সন্তুষ্ট নয়। এখনো সিরিজের বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি। সিরিজ নিয়ে অধিকাংশ ক্রিকেটার তাদের অনাগ্রহের কথা বোর্ড সভাপতিকে জানিয়েছে।’

অধিকাংশ ক্রিকেটার অনিচ্ছার কথা জানালেও একজন টেস্ট খেলোয়াড় এই সিরিজের জন্য স্বাক্ষর করেছেন বলে ইএসপিএন ক্রিকইনফো তাদের খবরে প্রকাশ করেছে।

আগামী ১২ জানুয়ারি বোর্ড মিটিং শেষে এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে বিসিবি। একটি সূত্র জানিয়েছে, তার আগে ক্রিকেটাররা বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসানের সাথে বৈঠক করবেন।

২০০৯ সালের মার্চে শ্রীলঙ্কার টিম বাসের ওপর সন্ত্রাসী হামলার পর থেকে পাকিস্তানে অন্য দেশের ক্রিকেটাররা খেলতে অনাগ্রহী। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড তখন থেকে নিরপেক্ষ ভেন্যু হিসেবে সংযুক্ত আরব আমিরাতে খেলার আয়োজন করে আসছে।

এদিকে বাংলাদেশ যদি পাকিস্তান সফরে না যায় তাহলে বিষয়টি আইসিসিকে জানাতে পারে পিসিবি, কেননা সিরিজের দুটি টেস্ট ম্যাচ আইসিসির বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ।

Loading...