Ultimate magazine theme for WordPress.

নির্দিষ্ট স্থানের বাইরে ঝুলবে না পোস্টার, বাজবে না মাইক

ঢাকা- জনদুর্ভোগের কথা বিবেচনায় নিয়ে ঢাকা-১০ আসনের উপনির্বাচনে নির্বাচনি প্রচারণা নিয়ন্ত্রণ করছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এ লক্ষ্যে রবিবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে ইটিআই ভবনে উপনির্বাচনে সম্ভাব্য প্রার্থীদের সঙ্গে বসে ইসি।

সেখানে ইসির পক্ষ থেকে প্রচার নিয়ন্ত্রণে প্রস্তাব তোলা হয়। প্রস্তাবে প্রার্থীদের সমর্থন নেওয়ার পর সেগুলো তুলে ধরেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদা। তিনি বলেন, ‘প্রচারণার জন্য প্রতিটি ইউনিয়নে, ওয়ার্ডে একটা করে অফিস রাখতে পারবেন। এর বাইরে একেবারেই মাইক বাজাতে পারবেন না।’

পোস্টারের বিষয়ে সিইসি বলেন, ‘কমিশন নির্ধারিত ২১ জায়গায় পোস্টার টাঙাতে পারবেন। প্রতিটি ওয়ার্ডে একটি করে অফিস করবেন, সেখানে পোস্টার টাঙাতে পারবেন। এর বাইরে কোথাও—রাস্তা, অলিতেগলিতে পোস্টার টাঙাতে পারবেন না। লেমিনেটেড পোস্টার টাঙানো যাবে না।

ঢাকা-১০ আসনের জন্য গাড়ি চলাচল উন্মুক্ত করলাম। শুধুমাত্র মোটরসাইকেল চলবে না বলেও জানান সিইসি।

তিনি বলেন, ‘ঢাকা-১০ আসনের ভোটের দিন অফিস খোলা থাকবে। আমরা সার্কুলার জারি করে দেব, যাতে অফিস থেকে গিয়ে কর্মকর্তারা ভোট দিতে পারেন।

নূরুল হুদা বলেন, ‘প্রতিটি দল ৫টি শোভাযাত্রা করতে পারবে। যেখানে সুবিধা সেখানে শোভাযাত্রা করতে পারবেন।’ তবে এই নির্বাচনে কোনো জনসভা করা যাবে না বলেও জানান সিইসি।

আগামীতে নির্বাচনী আচরণবিধি পরিবর্তন করে এই বিধিগুলো যোগ করা হবে। এ বিষয়ে সিইসি বলেন, ‘জাতীয় পর্যায়ের জন্য আমরা বিধিই পরিবর্তন করে ফেলব।’

তফসিলের অনুযায়ী, ঢাকা-১০ আসনে ৭ জন প্রার্থী মনোনয়ন সংগ্রহ করলেও ৬ জন মনোনয়নপত্র জমা দেন। এদিকে ঢাকা ১০ আসনের রিটার্নিং কর্মকর্তা ৬ প্রার্থীরই মনোনয়ন বৈধ ঘোষণা করেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.