Ultimate magazine theme for WordPress.

ভারতের কোচ হতে ২ হাজার আবেদন, রবি শাস্ত্রীই থাকছে

ভারতীয় ক্রিকেটে এখন সবচেয়ে আলোচিত বিষয়, কে হচ্ছেন জাতীয় দলের প্রধান কোচ।  বর্তমান কোচ রবি শাস্ত্রী,  মাহেলা জয়াবর্ধনে, গ্যারি কারস্টেন ও টম মুডির মতো কোচদের নাম তালিকায় আছে। তবে চমক জাগানিয়া খবর হচ্ছে, ভারতীয় দলের কোচ হতে নাকি দুই হাজারের বেশি আবেদন জমা পড়েছে।

বিসিসিআইয়ের সূত্রে খবর, জয়াবর্ধনের আবেদনের আশায় নাকি বসে ছিল কর্মকর্তারা। কিন্তু তিনি নাকি আবেদনই জমা দেননি। লঙ্কান সাবেক অধিনায়ক আইপিএলের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন মুম্বই ইন্ডিয়ানসের কোচ। আপাতত সেখানেই  কোচিং করাতে চান তিনি। তাই কোনো জাতীয় দলের কোচ হতে আগ্রহী নন তিনি।

এদিকে রবি শাস্ত্রীই নাকি আবার থাকতে চলেছেন ভারতীয় কোচের পদে। উপদেষ্টা কমিটির অন্যতম সদস্য অংশুমান গায়কোয়াড় জানিয়েছেন বর্তমান কোচকেই নাকি আবার রাখা হবে।

১৯৯৭ থেকে ১৯৯৯ দুই বছর ভারতীয় দলের কোচ ছিলেন গায়কোয়াড়। তিনি সরাসরি জানিয়ে দিয়েছেন, শাস্ত্রীকে সরানোর কোনো চিন্তাভাবনাই নেই। কারণ হিসেবে রবি শাস্ত্রীর পারফরম্যান্সকেই তুলে ধরছেন তিনি। তবে অন্য কোচিং স্টাফ পরিবর্তন হতে পারে।

ভারতীয় দলের অধিকাংশ ক্রিকেটারই কোচ রবি শাস্ত্রীর কাজে খুশি। এই কারণেই তিনিই প্রথম পছন্দ সবার। বোলিং কোচ ভরত অরুণও আবার আবেদন করেছেন। তবে ব্যাটিং কোচ সঞ্জয় বাঙ্গারের চাকরি হয়তো থাকছে না।

গায়কোয়াড় এ ব্যাপারে বলেন, ‘পারফরম্যান্স বিচার হলে, রবি শাস্ত্রী যথেষ্ট ভালো কাজ করেছেন। রবি শাস্ত্রীর বিষয় বাদ দিলে অন্য কোচিং পজিশনে বাছাই করা হবে। এটা নির্ভর করছে, কে আবেদন করছেন এবং বিসিসিআইয়ের নিজস্ব যোগ্যতামান তাঁদের রয়েছে কি না, এই বিষয়ের উপরে।’

কপিল দেবের উপদেষ্টা কমিটির সদস্য হলেন অংশুমান গায়াকোয়াড় ও শান্তা রঙ্গস্বামী। এই কমিটিই গত ডিসেম্বরে জাতীয় নারী দলের কোচের পদে ডব্লু ভি রামনকে বেছে নিয়েছে। যদিও তা নিয়ে বেশ বিতর্ক হয়েছিল।

Leave A Reply

Your email address will not be published.