Ultimate magazine theme for WordPress.

বিধ্বস্ত দিল্লি, শেবাগ-যুবরাজদের শান্তির ডাক

গত রোববার থেকে নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনকে (সিএএ) ঘিরে রণক্ষেত্রে পরিণত হয়েছে ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লির উত্তর-পূর্বাঞ্চল। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে বিরোধীদের সংঘর্ষে এখনও পর্যন্ত অন্তত ২০ জনের প্রাণহানির খবর পাওয়া গিয়েছে।

দেশটির সংবাদমাধ্যম জানাচ্ছে, গত চারদিন ধরে চলমান সহিংসতায় বিধ্বস্ত দিল্লি এখন আতঙ্কের নগরীতে রূপ নিয়েছে। দিল্লির বিভিন্ন অংশে উন্মত্ত জনতার আক্রমণ থেকে বাঁচতে বাড়িতে বাড়িতে গেরুয়া পতাকা ঝুলিয়ে নিজেদের হিন্দু হিসেবে পরিচয় দেয়া হচ্ছে।

মুসলিমদের ওপর হামলা ও দোকানপাট লুট ও অগ্নিসংযোগের খবর সংগ্রহ করতে প্রচণ্ড আক্রমণের শিকার হয়েছেন দেশটির সাংবাদিকরাও। সাংবাদিকদের ধর্মীয় পরিচয় জানতে প্যান্ট খুলে দেখার অভিযোগ উঠেছে হামলাকারীদের বিরুদ্ধে। এমতাবস্থায় প্রায় অচলই বলা চলে দিল্লিকে।

যা দেখে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন দেশটির সাবেক তারকা ক্রিকেটাররাও। ভিরেন্দর শেবাগ, গৌতম গম্ভীর, মোহাম্মদ কাইফ, যুবরাজ সিংরা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নিজেদের প্রোফাইলে শান্তির ডাক দিয়েছেন দিল্লিতে সংঘাতে জড়িয়ে থাকা মানুষদের উদ্দেশ্যে।

শেবাগ লিখেছেন, ‘দিল্লিতে এখন যা হচ্ছে, তা পুরোপুরি দুর্ভাগ্যজনক। সবার প্রতি আমার অনুরোধ থাকবে দিল্লিতে শান্তি বজায় রাখুন, সবাই শান্ত হোন। আমাদের এই মহান দেশের রাজধানীতে যে কারো ওপরে নির্যাতন বা আঘাত, বড় একটা কলঙ্ক হয়ে থাকবে। আমি সবার জন্য শান্তি এবং সৌহার্দ্য কামনা করছি।’

সাবেক মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যান কাইফ লিখেছেন, ‘মানবজাতির ইতিহাসে কোনো হিংসা-বিদ্বেষ ও সংঘাতই ধ্বংস ছাড়া আর কিছুই ডেকে আনেনি। বিশ্বের সবচেয়ে বৈচিত্র্যপূর্ণ দেশ আমাদের ভারত। চলুন এটাকে নিজেদের শক্তি হিসেবে ব্যবহার করি। দয়া করে ভবিষ্যতের জন্য, আমাদের বাচ্চাকাচ্চাদের জন্য এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হলো, আমাদের দেশ ভারতের জন্য হলেও সবাই একত্রে থাকুন।’

শেবাগের উদ্বোধনী সঙ্গী ও বর্তমান বিজেপি নেতা দুঃখপ্রকাশ করেছেন পুলিশ সদস্য শ্রী রতন লালের মৃত্যুতে। তিনি লিখেছেন, ‘শ্রী রতন লালের মৃত্যুতে আমি শোকাহত। কোনো গণতান্ত্রিক আন্দোলনে সহিংসতার জায়গা থাকতে পারে না। আমি সবাইকে অনুরোধ করছি শান্তি বজায় রাখুন এবং দিল্লি পুলিশকে বলবো দোষীদের বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করুন।’

ভারতের বিশ্বকাপজয়ী অলরাউন্ডার যুবরাজ সিং সুর মিলিয়েছেন কাইফের সঙ্গে। তিনি লিখেছেন, ‘দিল্লিতে এখন যা হচ্ছে, সত্যিই হৃদয়বিদারক। সবাইকে অনুরোধ করছি শান্তি বজায় রাখুন, সবাই ঐকবদ্ধ থাকুন। আশা করছি কর্তৃপক্ষ পরিস্থিতি মোকাবেলায় যথাযথ সিদ্ধান্ত নেবে। দিনশেষে আমরা সবাই মানুষ। আমাদের প্রত্যেকেরই সবার জন্য ভালোবাসা এবং শ্রদ্ধা থাকা উচিৎ।

Leave A Reply

Your email address will not be published.