ইভ্যালির ফান্ড থেকে কত টাকা গেছে, জানতে চান হাইকোর্ট

ইভ্যালির সাবেক এমডি ও চেয়ারম্যান বিকাশ, নগদ ও চেকের মাধ্যমে বিভিন্ন ব্যক্তিকে কত টাকা দিয়েছেন সেই তথ্য চেয়েছেন হাইকোর্ট।

 

বুধবার ২৭ এপ্রিল ইভ্যালি বোর্ডের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারপতি মুহাম্মদ খুরশীদ আলম সরকারের একক হাইকোর্টের কোম্পানি বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

 

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার সৈয়দ মাহসিব হোসাইন। ইভ্যালি বোর্ডের পক্ষে ছিলেন ব্যারিস্টার মোরশেদ আহমেদ খান।

 

ব্র্যাক ব্যাংক, ব্যাংক এশিয়া, স্ট্যান্ডার্ড চাটার্ড ব্যাংক, মধুমতি ব্যাংক, সাউথ ইস্ট ব্যাংক, ঢাকা ব্যাংক, ডাচ বাংলা ব্যাংক, মিডল্যান্ড ব্যাংক, সিটি ব্যাংক, কমিউনিটি ব্যাংক, বিকাশ ও নগদের ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও সিওকে এ তথ্য দাখিল করতে বলা হয়েছে।

 

এদিকে গত ২১ এপ্রিল চেক প্রতারণার ৯ মামলায় ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির সাবেক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. রাসেলকে জামিন দেন আদালত। ওই দিন ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালত থেকে জামিন পান তিনি। তবে তার বিরুদ্ধে আরও মামলা থাকায় কারামুক্ত হতে পারেননি রাসেল।

 

রাসেলের আইনজীবী আহসান হাবীব বলেছিলেন, ৯ মামলায় রাসেলের জামিন মঞ্জুর হয়েছে। তবে আরও মামলায় গ্রেফতার থাকায় তিনি কারামুক্ত হতে পারছেন না।

 

শাহজালালের টয়লেটে মিলল ৪৬ স্বর্ণের বার

 

ইভ্যালি রাসেল চেক প্রতারণার ৯ মামলায় জামিন পেলেন

 

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.