Ultimate magazine theme for WordPress.

ভুয়া ড্রাইভিং লাইসেন্স ও ফিটনেস দিয়ে মোটা অংকের টাকা নিত তারা

বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) মিরপুর কার্যালয়ে সেবাগ্রহীতাদের অর্থ নিয়ে কাজের নামে হয়রানি ও হেনস্তার অভিযোগে অভিযান চালিয়ে ২০ দালালকে আটক করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

বুধবার (৫ ফেব্রুয়ারি) বেলা ১১টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত মিরপুর কার্যালয়ে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে র‌্যাব-৪ এর একটি দল। ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আনিসুর রহমান।

আটককৃতরা হলেন- রাফি হাওলাদার (২০), খাইরুল ইসলাম (৩২), কবির (৩৮) উজ্জ্বল হোসেন (২৭), খোকন মোল্লা (৪০), ইমরান (২৫), শিপন (২৮), শাহজাহান আলী (৪৭), হাফিজুর রহমান (৪২), মো. মানিক (৫০), সুজন মিয়া (২০), মারুফ বিল্লাহ (২৩), অভিজিৎ মণ্ডল (২৭), ফরহাদ হোসেন রাজন (৩৬), রতন মিয়া (৪৫), সোহেল মিয়া (২৬), জাকির হোসেন (৩৮), অনিক খান (২৩), আলামিন (৩৪) ও ইসমাঈল (২৭)।

র‌্যাব-৪-এর অফিসার সিনিয়র এএসপি আক্তারুজ্জামান ব্রেকিংনিউজকে জানান, অভিযান চালিয়ে বিআরটিএ মিরপুর কার্যালয় থেকে আটক ২০ দালালের মধ্যে ১৪ জনকে দুই মাস করে কারাদণ্ড, তিন জনকে ১০ হাজার টাকা করে জরিমানা এবং বাকি তিনজনকে প্রথমবারের মতো মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়।

তিনি আরও বলেন, দালাল চক্রটি বিআরটিএ অফিসে সেবা নিতে যাওয়া মানুষকে নানাভাবে হয়রানি করে আসছিল। তারা ভুয়া ড্রাইভিং লাইসেন্স ও লাইসেন্স নবায়ন, ফিটনেস সার্টিফিকেট তৈরি করে প্রতারণা করতো। এজন্য সেবাগ্রহীতার কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকা নিতো।

অভিযোগ পাওয়ার পর র‌্যাব-৪ এর একটি দল তদন্ত করে প্রমাণ পাওয়ায় অভিযানে নামে। দালালদের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানান র‍্যাবের এই কর্মকর্তা।

Leave A Reply

Your email address will not be published.